• স্বপ্ন-জল-১ম-পর্ব
    গল্প,  গুপিনপুর,  ঘোড়াদহ,  চিনাখড়া,  মোহাম্মদ সেলিমুজ্জামান,  সাহিত্য

    স্বপ্ন জল (১ম পর্ব)

    স্বপ্ন জল (১ম পর্ব) মোহাম্মদ সেলিমুজ্জামান   বৃষ্টির ফোটাগুলো ছাদের কার্ণিশ থেকে পানির উপর পড়ছে। স্বচ্ছ পানি ছিটে পড়ছে চারিদিকে। এ এক বর্ণিল রঙ। হালকা মধুময় সুর। একদৃষ্টিতে তম্ময় হয়ে চেয়ে আছে সীমান্ত। এই বৃষ্টির ফোঁটা, নিচে জমে থাকা পানি, পানির নিচে পাথরের টুকরোগুলো এ সব সুরের আহ্বানে নিজের দৃষ্টি নিবদ্ধ রেখেছে সীমান্ত। মনে নেই কতক্ষণ কলাভবনের বারান্দার কার্ণিশে দাঁড়িয়ে আছে সে। এরই মাঝে বৃষ্টির হালকা ঠান্ডা হাওয়ায় নিজেকে সিক্ত করেছে কতবার। হঠাৎ পায়ের শব্দে তার তন্দ্রা ফিরে আসে। দেখলো বারান্দায় একজন ছেলে ও একটা মেয়ে দৌঁড়ে এসে দাঁড়াল। বৃষ্টিতে একটু ভিজে গেছে। ওড়না দিয়ে ছেলেটার মাথা মুছিয়ে দিলো মেয়েটি।…

  • মোহাম্মদ-সেলিমুজ্জামান
    গুপিনপুর,  লেখক পরিচিতি,  সাতবাড়িয়া,  সাহিত্য

    মোহাম্মদ সেলিমুজ্জামান

    মোহাম্মদ সেলিমুজ্জামান   সদালাপী এবং জীবনবাদী কথাশিল্পী মোহাম্মদ সেলিমুজ্জামান। তিনি কবি, কথাশিল্পী ও গবেষক হিসেবে সমাজে সমধিক পরিচিত। বর্তমানে জাতীয় শিক্ষা ব্যবস্থাপনা একাডেমি (নায়েম) এর পরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন)  হিসেবে কর্মরত আছেন। জন্ম: পদ্মার পলিমাটি বিধৌত শ্যামল বাংলার প্রকৃতির সাথে বেড়ে ওঠা মোহাম্মদ সেলিমুজ্জামান পাবনা জেলার সুজানগর উপজেলার অন্তর্গত সাতবাড়িয়া ইউনিয়নের গুপিনপুর গ্রামের সন্তান। সম্ভান্ত মুসলিম প্রামাণিক পরিবারে ১৯৬৯ সালের ১ জানুয়ারি-তে  তাঁর জন্ম। পারিবারিক জীবন: পিতা মহির উদ্দিন প্রামানিক ছিলেন আওয়ামীলীগ নেতা, মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা (শহীদ), মাতা মরহুমা হাজেরা খাতুন। ছয় ভাই বোনের মধ্যে তিনি চতুর্থ। পিতামহ কফিল উদ্দিন প্রামাণিক ছিলেন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান। স্ত্রী জাফরিন আক্তার,…

  • আহমেদ-তফিজ-উদ্দিন
    কৃতি ব্যক্তিবর্গ,  জনপ্রতিনিধি,  তারাবাড়িয়া,  সাতবাড়িয়া

    আহমেদ তফিজ উদ্দিন

    আহমেদ তফিজ উদ্দিন (১৯২৯-১৯৯৮) একজন বাংলাদেশি রাজনীতিবিদ যিনি তৎকালীন পাবনা-৯ ও বর্তমানে পাবনা-২ আসনের সংসদ সদস্য ছিলেন। জন্ম: আহমেদ তফিজ উদ্দিন ১৯২৯ সালে পাবনা জেলার সুজানগর উপজেলার সাতবাড়িয়া ইউনিয়নের তারাবাড়িয়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন।  পারিবারিক জীবন: পিতার নাম আব্দুল শুকুর মণ্ডল এবং মাতার নাম ভায়না খাতুন। তিনি বাবা মায়ের বেশ আদরের সন্তান ছিলেন। বাবা মায়ের আদর্শে তিনি বড় হতে থাকেন। স্ত্রী ফিরোজা বেগম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা ছিলেন। আহমেদ তফিজ উদ্দিন ও ফিরোজা বেগম দম্পত্তির তিন ছেলে ও তিন মেয়ে।  বড় ছেলে আহমেদ ফিরোজ কবির ৬৯ পাবনা-২ (সুজানগর-বেড়ার একাংশ) আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য। শিক্ষা জীবন: নিজ গ্রামের ফ্রি প্রাইমারি স্কুল…

  • ফজলুল-হক
    ভাটপাড়া,  লেখক পরিচিতি,  সাতবাড়িয়া,  সাহিত্য

    মো. ফজলুল হক

    মো. ফজলুল হক, পেশায় একজন সরকারি কর্মকর্তা হয়েও রোমাঞ্চকর কাব্য রচয়িতা হিসেবে কাব্যিক জগতে নিজের অবস্থান সুদৃঢ় করেছেন। তাঁর লেখায় জাগতিক জগতের প্রেম-ভালোবাসা, বিরহ-ব্যথা, প্রকৃতি ও সমাজে ঘটে যাওয়া নানা অসঙ্গতি স্পষ্টভাবে ফুটে উঠেছে। তাঁর কবিতা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম, বিভিন্ন জাতীয় পত্রিকা, অনলাইন পত্রিকা, ম্যাগাজিন, ভাঁজপত্রসহ বিভিন্ন মাধ্যমে নিয়মিত প্রকাশ হচ্ছে। জন্ম: ফজলুল হক ১৯৭০ খ্রিস্টাব্দের ১লা আগস্ট  পাবনা জেলার সুজানগর উপজেলার সাতবাড়িয়া ইউনিয়নের হরিরামপুর গ্রামের (বর্তমান ভাটপাড়া) বিশ্বাস পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন।  পারিবারিক জীবন: পিতা মৃত ওয়াহেদ আলী বিশ্বাস এবং মাতা মোছা. শেফালী খাতুন।  তাঁর পিতা ছিলেন একজন ডিপ্লোমাধারী। তিনি মুক্তিযুদ্ধের সময় স্থানীয় গ্রামের যুবকদের মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণে উদ্বুদ্ধ ও…

  • পূর্ণিমা-হক
    ভাটপাড়া,  লেখক পরিচিতি,  সাতবাড়িয়া,  সাহিত্য

    পূর্ণিমা হক

    পূর্ণিমা হক, এ সময়ের একজন জনপ্রিয় কবি হিসেবে কবিতা প্রেমিদের মনে জায়গা করে নিয়েছেন। প্রকাশিত কাব্যগ্রন্থের বাইরেও তাঁর লেখা বিভিন্ন জাতীয় পত্রিকা ও অনলাইন পত্রিকায় নিয়মিত প্রকাশ হচ্ছে। জন্ম: বৈবাহিক সূত্রে স্থায়ী ঠিকানা পাবনা জেলার সুজানগর উপজেলার অন্তর্গত সাতবাড়িয়া ইউনিয়নের ভাটপাড়া গ্রামে।  তিনি ১৯৭৮ সালের ৫ নভেম্বর  রংপুর সদর উপজেলার পুটিমারি গ্রামের  শেখ   পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন।  পারিবারিক জীবন: পিতা মৃত আতিয়ার রহমান (অবসরপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ), মাতা ফজিলাতুন্নেছা, পেশায় গৃহিণী। পাঁচ ভাইবোনের মধ্যে তিনি প্রথম।  স্বামী কবি মো. ফজলুল হক, পেশায় সরকারি কর্মকর্তা। তিনি দুই কন্যা সন্তানের জননী। বড় মেয়ে রাজশাহী নিউ ডিগ্রী সরকারি কলেজ থেকে এবছর (২০২১) এইচএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ…

error: Content is protected !!