মুক্তিযোদ্ধার-মৃত্যু-নেই
কবিতা,  খলিফা আশরাফ,  সাহিত্য

মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যু নেই, একাত্তুরের অব্যর্থ-ট্রিগার

মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যু নেই

খলিফা আশরাফ

 

কিছু কিছু তারুণ্যের মৃত্যু নেই কোন, বাড়ে না বয়স
জীবনকে অকম্পিত যে ধরেছে অগ্নিশিখায়
নিশ্চিত মৃত্যু মুখে দাঁড়িয়েছে সটান অনড়
অকুতোভয় দিয়েছে পাল্লা সিংহের সাথে
আঙ্গুলের ফলায় তুলেছে হায়েনার চোখ
তাকে আর মৃত্যুভয়ে যাবে না দমানো
বিনাশের আদ্যপান্ত বিলক্ষণ জানা আছে তার,

মনে রেখো, জীবনকে জিতেছে সে মরনের মাঝে
একাত্তুরের রণাঙ্গনে যে খেলেছে অজস্র মৃত্যুখেলা
বেয়োনেটের অগ্রভাগে বেঁধেছে যে পরমায়ু সুতো
গ্রেনেডের ছত্রিশ টুকরো আকণ্ঠ নিয়েছে তুলে
স্টেনগানের ফুটোয় ফুটোয় দিয়েছে ফুঁৎকার
মর্টারের গোলার সাথে করেছে দোস্তি আমরণ
যমদূতের কণ্ঠ চেপে লক্ষ লাশের মাঝে
অকুতোভয় দীপ্র হাতে উড়িয়েছে বিজয় কেতন
মরনের কথা তারে শুনিওনা আর,

যে আদর্শ-বীজ বুনেছে সে বোধের জমিনে মগজে মননে
যে বজ্রকন্ঠ নিয়েছে তুলে আত্মার গভীরে
যে সত্যপাঠ মিশেছে লোহুতে শিরায় শিরায়
যে অঙ্গীকার ছিলো তার জননী জন্মভূমি মানুষের কাছে
সে ঋদ্ধ বাতিঘর তারে দেখায় পথের দিশা
নির্ভীক করে তোলে প্রহরে প্রহরে,

মুক্তিযোদ্ধার বয়স বলে কিছু
নেই নেই কিছু ভুলবার ইতিহাস
ট্রিগারে আঙ্গুল রাখা বেমালুম স্মৃতিতে তাহার
বক্ষের কন্দরে আছে জীবন্ত মাইন
পিনখোলা গ্রেনেড উদগ্রীব হাতের মুঠোয়
অক্ষিগোলকে ধরা বিধ্বংসী মর্টারের গোলা
বিনাশী ভয়ংকর হতে পারে সে যে কোন সময়।

 

একাত্তুরের অব্যর্থ-ট্রিগার

ইদানিং আমার বুকের ভেতর
এক চির চির ব্যথা মাথা চাড়া দিয়ে ওঠে,
আমার হাড়, মাংস, হৃদপিণ্ড সব
দুমড়ে মুচড়ে অনুক্ষণ সতর্ক করে দেয়,
কখনো কখনো হিস হিস আতংকের ছায়া
অনাহুত গাঢ় হয় বোধের শরীরে,
মাঝেমধ্যেই আমার ফুরফুরে ঘুমের আকাশে
অকস্মাৎ ধেয়ে আসে মাংসাশী বায়স-শকুন নখাগ্র বিস্তারে,
আমার হৃদয়ের সুনশান করিডোরে সুতীব্র চীৎকারে
সংহারী শ্লোগান তোলে সারমেয়-শৃগাল-হায়েনার দল,

এইসব অশনি সংকেতে
আমার অস্তিত্বের মর্মমূলে জ্বলে ওঠে
মুক্তিযুদ্ধের অবিনাশী ক্রোধের অনল
রন্ধ্রে রন্ধ্রে শান দেয় শপথের নির্ভীক প্রত্যয়
নরকীট, পশু বধের প্রচণ্ড আক্রোশে
টার্গেটে নিপুন গেঁথে যায় দৃষ্টি-সজাগ
অবলীলায় অকুতোভয়-তর্জনী আমার
সদর্পে স্পর্শ করে একাত্তুরের অব্যর্থ-ট্রিগার।

 

আরও পড়ুন কয়েকটি কবিতা-
স্বাধীনতা দিবস
বিবর্ণ স্বাধীনতা
বাংলাদেশ
এসেছি স্বাধীনতা সাথে করে
লিপিকার আমিই তোমার

 

ঘুরে আসুন আমাদের অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলফেসবুক পেইজে

মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যু নেই

Facebook Comments Box

খলিফা আশরাফ জীবন ঘনিষ্ঠ একজন কবি ও গল্পকার। তাঁর লেখায় মূর্ত হয়ে ওঠে সমসাময়িক কাল, মূল্যবোধের অবক্ষয়, নৈতিকতার বিপর্যয় এবং মানুষের অভাবিত সার্থলোলুপতার ক্লিষ্ট চিত্র। তিনি বৈরী সময়কে গভীর ব্যঞ্জনায় অনুপম রূপায়ন করেন তাঁর লেখায়, সামাজিক অন্যায় অসঙ্গতি এবং নির্মমতার কারুণ্য ফুটিয়ে তোলেন অন্তর্গত তীক্ষ্ম অনুসন্ধিৎসায়। প্রকাশনা-কাব্যগ্রন্থ: বিপরীত করতলে, কালানলে অহর্নিশ, অস্তিত্বে লোবানের ঘ্রাণ; গল্পগ্রন্থ: বিল্লা রাজাকার ও সেই ছেলেটি, অগ্নিঝড়া একাত্তুর, একাত্তরের মোমেনা, পাথরে শৈবাল খেলে; ছড়াগ্ৰন্থ: ভুতুড়ে হাওয়া, কাটুশ-কুটুশ। তিনি  ১৯৫২ সালের ১ জানুয়ারি পাবনা জেলার সুজানগর উপজেলার অন্তর্গত নাজিরগঞ্জ ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রামে এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। 

error: Content is protected !!